| বাংলার জন্য ক্লিক করুন
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   নগর - মহানগর -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
রাজধানীর যে সব এলাকায় ১০ ঘণ্টা থাকবে না গ্যাস শনিবার

নিজস্ব প্রতিনিধি

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, জরুরি গ্যাস পাইপ লাইন স্থানান্তরের জন্য শনিবার সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত তেজকুনিপাড়া, তেজগাঁও বালিকা বিদ্যালয় এলাকা, কারওয়ান বাজার, খ্রিস্টান পাড়া, সোনারগাঁও হোটেল, কাঁঠালবাগান, দিলু রোড, পরিবাগ, সোনারগাঁও রোডের পূর্ব পার্শ্ব, কাঁটাবন রোড এর পশ্চিম পাশের এলাকায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে এবং পার্শ্ববর্তী এলাকায় স্বল্পচাপ বিরাজ করবে। সাময়িক এ অসুবিধার জন্য গ্রাহকদের কাছে দুঃখ প্রকাশ করেছে তিতাস কর্তৃপক্ষ।

রাজধানীর যে সব এলাকায় ১০ ঘণ্টা থাকবে না গ্যাস শনিবার
                                  

নিজস্ব প্রতিনিধি

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, জরুরি গ্যাস পাইপ লাইন স্থানান্তরের জন্য শনিবার সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত তেজকুনিপাড়া, তেজগাঁও বালিকা বিদ্যালয় এলাকা, কারওয়ান বাজার, খ্রিস্টান পাড়া, সোনারগাঁও হোটেল, কাঁঠালবাগান, দিলু রোড, পরিবাগ, সোনারগাঁও রোডের পূর্ব পার্শ্ব, কাঁটাবন রোড এর পশ্চিম পাশের এলাকায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে এবং পার্শ্ববর্তী এলাকায় স্বল্পচাপ বিরাজ করবে। সাময়িক এ অসুবিধার জন্য গ্রাহকদের কাছে দুঃখ প্রকাশ করেছে তিতাস কর্তৃপক্ষ।

রোজিনার জামিন শুনানির আদেশ পেছাল
                                  

অনুমতি ছাড়া করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিনের সরকারি নথির ছবি তোলার অভিযোগে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের করা অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্ট মামলায় দৈনিক প্রথম আলোর সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের জামিন শুনানির আদেশ রোববার (২৩ মে) ধার্য করেছেন আদালত।বৃহস্পতিবার (২০ মে) বিকালে ঢাকার মহানগর হাকিম বাকী বিল্লার আদালত এ আদেশ  দেন। এরআগে শুনানি শেষ হওয়ার পর জামিন শুনানির আদেশ পরে দেওয়া হবে বলে জানান আদালত।

দুই পক্ষের বক্তব্য শুনে পরে বিচারক বলেন, ‘নথিপত্র পর্যালোচনা করে দ্রুততম সময়ে আদেশ দেওয়া হবে।’

শুনানিতে জামিনের বিরোধিতা করে রাষ্ট্রপক্ষে সহকারী পাবলিক প্রসিকিউটর হেমায়েত উদ্দিন খান হিরণ বলেন, ‘আসামির কাছ থেকে আলামত উদ্ধার করা হয়েছে, তাকে জামিন দেওয়া ঠিক হবে না।’

অন্যদিকে রোজিনার আইনজীবী এহসানুল হক সমাজি বলেন, ‘এজাহারে সেরকম কোনো আলামতের বর্ণনা নেই। যে আলামতের কথা বলা হচ্ছে, তা পরে ম্যানিপুলেট করা।’তিনি বলেন, ব্রিটিশ আমলের যে  ‘অফিসিয়াল সিক্রেটস’ আইনে এ মামলা করা হয়েছে, বাংলাদেশে তার ব্যবহার অত্যন্ত কম, সাংবাদিকদের বিরুদ্ধেও এ আইন প্রয়োগের তেমন নজির নেই। ভারতে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে এ আইন ব্যবহার করতে দেখা গেছে।

রোজিনার পক্ষে শুনানিতে আরও ছিলেন আইনজীবী আশফ উল আলম, প্রশান্ত কর্মকার ও আমিনুল গণি টিটো।

ব্যারিস্টার জ্যোতির্ময় বড়ুয়া, ব্লাস্টের মশিউর রহমান এবং আইন ও সালিশ কেন্দ্রের মো. আবদুর রশীদও উপস্থিত ছিলেন।

গত মঙ্গলবার (১৮ মে) দুপুরে অনুমতি ছাড়া করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিনের সরকারি নথির ছবি তোলার অভিযোগে দৈনিক প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামের রিমান্ড আবেদন খারিজ করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত। ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) মোহাম্মদ জসিম এ নির্দেশ দেন।এর আগে রোজিনার বিরুদ্ধে করা স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের করা অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্ট মামলা ডিবিতে স্থানান্তর করা হয় বলে জানান ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) রমনা বিভাগের উপপুলিশ কমিশনার এইচ এম আজিমুল হক।

বৃহস্পতিবার (২০ মে) সকালে সময় নিউজকে তিনি বলেন, প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের মামলার তদন্তের স্বার্থে যা যা করা দরকার, তার সবই করা হবে। তিনি বলেন, মামলা তদন্ত করতে কোনো জায়গা থেকে কোনো চাপ নেই।

এদিকে গতকাল বুধবার (১৯ মে) সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে হেনস্তা ও মামলা দিয়ে হয়রানির প্রতিবাদে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে মানববন্ধন করে বিভিন্ন সংগঠন। এ সময় সাংবাদিক নেতারা তার মুক্তি দাবি জানান।  

একই দাবিতে গোপালগঞ্জ, ঝিনাইদহ, ফেনী ও ময়মনসিংহসহ মানববন্ধন এবং প্রতিবাদ সমাবেশ করেছেন সংবাদমাধ্যম কর্মীরা। ছাড়াও প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামকে হেনস্তা ও গ্রেপ্তারের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে জাতিসংঘ। বিশ্ব সংস্থাটি বলেছে, বিষয়টির দিকে তারা নজর রাখছে এবং এটি স্পষ্টতই উদ্বেগের বিষয়।

প্রসঙ্গত, সচিবালয়ে অনুমতি ছাড়া করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিনের সরকারি নথির ছবি তোলার অভিযোগে রোজিনা ইসলামকে পাঁচ ঘণ্টা আটকে রাখার পর শাহবাগ থানা পুলিশে সোপর্দ করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

সোমবার (১৭ মে) রাত সাড়ে ৮টার পরে শাহবাগ থানা পুলিশের একটি টিম সচিবালয় থেকে সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে নিয়ে যায়। রোজিনা ইসলামের বিরুদ্ধে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব সিব্বির আহমেদ ওসমানী লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

রিকশা থেকে ছিটকে পড়ে শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু
                                  

রাজধানীর উত্তরায় লেগুনার ধাক্কায় রিকশা থেকে ছিটকে পড়ে এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যুর হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২০ মে) উত্তরার আজমপুর রেলগেট এলাকায় বেলা পৌনে ১১টায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত শিশুর নাম মরিয়ম (৭)। সে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার সদর উপজেলার সুন্দরপুর বাগডাঙ্গা গ্রামের রাজমিস্ত্রি রাকিব হোসেনের মেয়ে।
 
বর্তমানে সে উত্তরখান ফকির শাহ মাজার এলাকায় পরিবারের সঙ্গে থাকত। তিন বোন, এক ভাইয়ের মধ্যে মরিয়ম ছিল তৃতীয়।
নিহত শিশুটির বাবা রাকিব হোসেন জানান, সকালে আমার মেয়ে মরিয়মকে নিয়ে পাশের ভাড়াটিয়া হৃদয় হাসান ও তার মেয়েসহ ঘুরতে বের হয়েছিল। পরে লেগুনার ধাক্কায় রিকশা থেকে ছিটকে পড়ে গুরুতর আহত হয় মরিয়ম। তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

শিশুটির মা ডলি আরা বেগম জানান, মাঝেমধ্যে পাশের ভাড়াটিয়া হৃদয় হাসানের সঙ্গে ও তার মেয়ের সঙ্গে ঘুরতে বের হতো মেয়ে মরিয়ম।
আজ সকালে তাদের সঙ্গেই ঘুরতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হয়ে আমার মেয়ে মেয়ের মৃত্যু হয়।

ঢাকা মেডিকেল কলেজের (ঢামেক) পুলিশ ক্যাম্পের পুলিশ পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া জানান মৃতদেহটি হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট থানাকে অবহিত করা হয়েছে।


প্রয়োজনে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন পর্যালোচনা করা হবে’
                                  

কোনো আইনই সম্পূর্ণ নয়, বিতর্কের ঊর্ধ্বে না। প্রয়োজনের তাগিদে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন পর্যালোচনা করা যেতে পারে বলে জানিয়েছেন মৎস ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম। শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) এ কথা বলেন মন্ত্রী। 

এ সময় লেখক মুশতাকের মৃত্যু নিয়ে মন্ত্রী বলেন, মুশতাক আহমেদের মৃত্যু কাম্য নয়। তবে এটি অনাকাঙ্ক্ষিত মৃত্যু, হত্যাকাণ্ড নয় বলেও জানান মৎস ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী।

এদিকে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২১, ২৫, ২৮ ও ৩৫ ধারা মতপ্রকাশ ও বাকস্বাধীনতার পরিপন্থী উল্লেখ করে তা সংশোধন করতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ড. শাহদীন মালিক।

এত দিন পর কেন আসলেন: আল জাজিরা ইস্যুতে হাইকোর্ট
                                  

আল জাজিরায় প্রকাশিত ‘অল দ্য প্রাইম মিনিস্টার’ ম্যান প্রতিবেদনটিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের বিষয়ে মানহানিকর তথ্য প্রচার করা হয়েছে। এমন পর্যবেক্ষণ দিয়ে হাইকোর্ট বিতর্কিত প্রতিবেদনটি প্রকাশের ১০ দিন পর আদালতে আসার জন্য রিটকারী আইনজীবীকে ভৎসনা করেছেন।হাইকোর্ট রিটকারী আইনজীবীকে উদ্দেশ করে বলেন, আল জাজিরার প্রতিবেদনটি ১ ফেব্রুয়ারি প্রকাশিত হয়, যা গেল ৯ দিনে দেশ-বিদেশের লাখো মানুষ দেখেছে। আর আপনি ১০ দিন পর আদালতের কাছে এসেছেন ফেসবুক, ইউটিউব, টুইটারসহ সব অনলাইন প্ল্যাটফর্ম থেকে এটি সরিয়ে নেওয়ার আদেশ নিতে। এত দিন কী করেছেন?

শুধু তাই নয়, আল জাজিরার প্রতিবেদনের বিষয়ে তথ্য মন্ত্রণালয় ও বিটিআরসি কেন কিছু করেনি সে বিষয়ে প্রশ্ন তুলেন হাইকোর্ট। বিটিআরসির পক্ষে থাকা আইনজীবী রেজা ই রাকিবকে হাইকোর্ট প্রশ্ন করেন, আপনাদের তো এ ধরনের কন্টেন্টের বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য সুর্নিদিষ্ট আইন আছে। তাহলে আপনারা বা তথ্য মন্ত্রণালয় কেন কিছু করেনি।অতীতের বিভিন্ন সময় তো এ ধরনের ইস্যুতে আপনারা ব্যবস্থা নিয়েছিলেন, তাহলে আল জাজিরা ইস্যুতে কেন আপনারা  নিজেরা কিছু না করে আদালতের কাছে এসেছেন? 

বুধবার (১০ জানুয়ারি) সকালে বিচারপতি মো. মজিবর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লা বাংলাদেশে আল জাজিরার সম্প্রচার বন্ধ ও অল দ্য প্রাইম মিনিস্টার ম্যান প্রতিবেদনটি ফেসবুক, ইউটিউব, টুইটারসহ সব অনলাইন প্ল্যাটফর্ম  থেকে সরিয়ে নেওয়ার অনুমতি চেয়ে করা রিটের শুনানিতে এসব মন্তব্য করেন। 

দ্বিতীয় দিনের মতো আল জাজিরা ইস্যুতে হাইকোর্ট শুনানি শুরু করেন সকাল ১১টা ৪৮ মিনিটে। শুনানিতে বিটিআরসির আইনজীবী ব্যারিস্টার রেজাই রাকিব আদালতকে বলেন, আল জাজিরায় প্রকাশিত অল দ্য প্রাইম মিনিস্টার ম্যান প্রতিবেদনটি দেশের সার্বভেৌমত্বের ওপর আঘাত। এটি উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। দেশের সেনাবাহিনী, পুলিশসহ রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের মানহানির উদ্দেশ্যই কাতারভিত্তিক বেসরকারি চ্যানেল আল জাজিরা রিপোর্টটি প্রকাশ করেছে।

অন্যদিকে রিটকারী আইনজীবী আনামুল কবীর ইমন শুনানিতে আদালতে বলেন, আল জাজিরার প্রতিবেদনের শিরোনাম থেকেই স্পষ্ট হয় এটি একটি বিশেষ উদ্দেশ্য নিয়ে প্রস্তুত করা হয়েছে। এ প্রতিবেদন সরকারবিরোধী এবং দেশের বিদ্যমান স্থিতিশীলতা নষ্টের হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে।

আদালত এ বিষয়ে অধিকতর শুনানির জন্য সুপ্রিম কোর্টের ৬ জন আইনজীবীকে অ্যামিকাস কিউরি হিসেবে নিয়োগ দেন। তারা হলেন- সিনিয়র আইনজীবী এ জে মোহাম্মদ আলী, কামাল উল আলম, আব্দুল মতিন খসরু, ফিদা এম কামাল, প্রবীর নিয়োগী ও ড. শাহদীন মালিক।

আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশে আল জাজিরার সম্প্রচার বন্ধ ও বিতর্কিত অল দ্য প্রাইম মিনিস্টার ম্যান প্রতিবেদনটি ফেসবুক, ইউটিউব, টুইটারসহ সব অনলাইন প্ল্যাটফর্ম  থেকে সরিয়ে নেওয়ার বিষয়ে আদালতে শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

আলাউদ্দিন জিহাদীর মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল
                                  

কাউসার আহম্মেদঃ

হেফাজতে ইসলামের প্রয়াত আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফীকে নিয়ে ফেসবুকে কটূক্তির অভিযোগে গ্রেপ্তারকৃত মুফতি আলাউদ্দিন জিহাদীর মুক্তির দাবিতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করেছে আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাত সহ বিভিন্ন ইসলামিক দলের আলেম ওলামারা।

আজ বৃহস্পতিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৩টায় অনুষ্ঠিত হওয়া মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা বলেন, আলাউদ্দিন জিহাদী একজন দেশে বরণ্যে আলেম। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার এডমিনের দেওয়া একটি পোস্টের জন্য দুঃখ প্রকাশ করার পরেও তাকে অন্যায়ভাবে গ্রেপ্তার ও রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে। সুন্নিরা ৩ দিন ধরে শান্তিপূর্ণভাবে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল জেলা  উপজেলায় আন্দোলন করে আসছে। কোন কোন জায়গায় সড়ক মহাসড়ক অবরোধ হয়েছে। কিন্তু প্রশাসন এখনও তাকে মুক্তি না দিয়ে জেলে আটক রেখেছে। সুন্নিরা শান্তি প্রিয়, মানে এই নয় যে- তারা যে কোন অন্যায়-জুলুম মেনে নিবে। অবিলম্বে আলাউদ্দিন জিহাদীকে মুক্তি দেওয়া না হয় তাহলে সুন্নিরা যে কোন কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবে।


উল্লেখ্য, আল্লামা আহমদ শফীকে কটূক্তি মামলায় ২০ সেপ্টেম্বর মাওলানা আলাউদ্দিন জিহাদীকে গ্রেপ্তারের পর তার মুক্তির দাবিতে চট্টগ্রামসহ সারাদেশ আহলে সুন্নাত, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট, যুবসেনা, ছাত্রসেনাসহ ইসলামী দলগুলো আন্দোলন করে আসছে।

ধর্ষণ মামলার বিষয়ে যা বললেন ভিপি নুর
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নুরুল হক নুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে রাজধানীর লালবাগ থানায় একটি মামলা হয়েছে। শুক্রবার রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামের ইতিহাস বিভাগের এক শিক্ষার্থী বাদী হয়ে মামলাটি করেছেন। এ মামলার বিষয়ে নিজের বক্তব্য দিয়েছেন ভিপি নুর। ভিপি নুর বলেন, মামলার বিষয়ে তেমন কিছু জানেন না এবং বাদী সেই নারীকেও তিনি চেনেন না বলে দাবি করেন ভিপি নুর। মামলাটি তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের অংশ বলে মনে করছেন ভিপি নুর।

মামলার পর এক লাইভ ভিডিওতে ভিপি নুর বলেন, লালবাগ থানায় না কোথায় মামলা হয়েছে সেটি আমি জানি না। এমনকি কোন মেয়ে মামলাটি করেছে তাকেও চিনি না। আমাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা তো নতুন কিছু নয়। এসব মামলা-হামলা ধারাবাহিক ষড়যন্ত্রের অংশ।

 

কোটা সংস্কার আন্দোলন থেকে উঠে আসা এই ছাত্রনেতা বলেন, আমার বিরুদ্ধে এর আগেও একাধিক মামলা হয়েছে। চুরির মামলা, ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের মামলাও হয়েছে।

ভিপি নুর বলেন, এসব মামলা মূলত আমাদের চরিত্র হনন করার ষড়যন্ত্র। এসব মামলায় আমরা বিচলিত নই। দেশবাসী সবকিছু বোঝেন এবং জানেন। মামলা দায়েরকারীকে আমি চিনি না।

নুর বলেন, এসব মামলা করে লাভ নেই। আমি মামলা-হামলার ভয় পাই না। জনগণকে তাদের ভোটাধিকার ফিরিয়ে দেয়ার লড়াই চলবেই। মনে রাখতে হবে- এই দিন দিন নয়, আরও দিন আছে।

মামলার বিষয়ে লালবাগ থানার ওসি কেএম আশরাফ উদ্দীন জানান, রবিবার রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী নুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করেছেন। আমরা বিষয়টি তদন্ত করে দেখছি। গত ৩ জানুয়ারি ১০৪, নবাবগঞ্জ রোডের একটি বাসায় নিয়ে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ করেছেন ওই শিক্ষার্থী। মামলার এজাহারে ৬ জনকে আসামি করা হলেও ধর্ষণকাণ্ডে ডাকসু ভিপি একাই জড়িত ছিলেন বলে দাবি ওই শিক্ষার্থীর।

 

গুলশানে স্পা সেন্টারে অভিযান
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

রাজধানীর গুলশানের অ্যাপেল থাই স্পা সেন্টারে অভিযান চালিয়েছে গুলশান থানা পুলিশ। এ সময় ওই স্পা সেন্টার থেকে অন্তত ১২ জন পুরুষ ও ১৬ জন নারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

রবিবার (২০ সেপ্টেম্বর) রাতে গুলশান-২ এর ১০৫ নম্বর রোডের একটি বাসায় অভিযান চালিয়ে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। পুলিশের গুলশান বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) সুদীপ কুমার চক্রবর্ত্তী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, এই স্পা সেন্টারে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে বিভিন্ন বয়সী নারীদের একত্রিত করে দেহ ব্যবসা পরিচালনা, যৌন শোষণ ও নিপীড়নমূলক কাজ চলে আসছিল।

গুলশান থানা পুলিশ জানায়, রাত সাড়ে ৮টায় ওই স্পা সেন্টারে অভিযান চালায় পুলিশ। অভিযানে স্পার নামে এই সেন্টারকে অসামাজিক কাজে ব্যবহারের প্রমাণ পাওয়া যায়।

এ সময় ১২ জন নারী ও ১৬ জন পুরুষকে আটক করা হয়। আটককৃতদের থানায় নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার বিষয়ে প্রক্রিয়া চলছে।

ছিনতাইয়ের সময় অস্ত্রসহ ২ সন্ত্রাসী আটক
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

রাজধানীর মিরপুরে ছিনতাই করার সময় অস্ত্রসহ দুই সন্ত্রাসীকে হাতেনাতে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন র‌্যাব- ৪ মিরপুর ক্যাম্প। আজ শনিবার ভোররাতে মিরপুর ১০ নম্বর গোলচত্বর থেকে তাদের আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন- নারায়ণগঞ্জ জেলার আরিফুল ইসলাম ওরফে চাক্কু আরিফ (৩২) ও মাদারীপুর জেলার জোবায়ের হোসেন (৩০)।

র‌্যাব- ৪ এর সহকারী পুলিশ সুপার জিয়াউর রহমান চৌধুরী জানান, আটক দুই সন্ত্রাসী সাভারের আমিনবাজার বেড়িবাধ ও মিরপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় মানুষকে অস্ত্র দিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে চাঁদাবাজি করে আসছিল। এ ছাড়া তাদের বিরুদ্ধে অপহরণ, মাদকসহ মিরপুরসহ বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। এসব ঘটনায় ভুক্তভোগীরা অতিষ্ট হয়ে দুই সন্ত্রাসীর বিরুদ্ধে র‌্যাব-৪ এর কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে র‌্যাব তাদেরকে ধরতে মাঠে নামে।

পরে আজ ভোররাতে মিরপুর ১০ নম্বর গোলচত্বর এলাকায় ছিনতাই করার সময় র‌্যাবের একটি দল হাতেনাতে দুই সন্ত্রাসীকে আটক করে। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি ওয়ান শ্যুাটারগান, দুটি ছোরা, একটি মোটরসাইকেল, দুটি মোবাইল ফোন ও নগদ ৫ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।

জিয়াউর রহমান চৌধুরী আরও বলেন, আটক দুই সন্ত্রাসীর বিরুদ্ধে সংশ্রিষ্ট থানায় মামলা দায়ের করে তাদেরকে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হবে। এ ছাড়া ভবিষ্যতে এরূপ সংঘবদ্ধ সন্ত্রাসী গ্রুপের বিরুদ্ধে র‌্যাব-৪ এর জোরালো সাড়াশি অভিযান অব্যাহত থাকবে।

অন্যদিকে, ঢাকার ধামরাইয়ের নান্নার এলাকায় চাঁদাবাজি করার সময় দেশীয় অস্ত্রসহ এক সন্ত্রাসীকে আটক করেছে ধামরাই থানা পুলিশ।

৫ মাস পর চট্টগ্রামে লোকাল ট্রেন চালু
                                  

চট্রগ্রাম প্রতিনিধিঃ

দীর্ঘ পাঁচ মাস বন্ধ থাকার পর চট্টগ্রামে আজ থেকে শুরু হলো লোকাল ট্রেন চলাচল। বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) সকাল দশটায় চট্টগ্রাম রেলওয়ের পুরাতল রেলস্টেশন থেকে ঢাকার উদ্যেশে ছেড়ে যায় কর্ণফুলী কমিউটার নামের ট্রেনটি। আগামী ১৩ ও ১৬ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হবে আঞ্চলিক ট্রেন চলাচল। এদিকে, আগামী ১২ সেপ্টেম্বর কাউন্টার থেকে শুরু হবে টিকিট বিক্রি। কর্ণফুলী কমিউটার ট্রেন চালুর মধ্য দিয়ে শুরু হলো চট্টগ্রাম থেকে লোকাল ট্রেন চলাচল। দীর্ঘ পাঁচ মাস বন্ধ থাকার পর বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় ঢাকার উদ্যেশে ছেড়ে যায় এই ট্রেন।

দ্বিতীয় দফায় ১৩ সেপ্টেম্বর থেকে চালু হবে ময়মসিংহ এক্সপ্রেস, চাঁদপুর কমিউটার ও নোয়াখালী কমিউটারসহ বেশ কিছু ট্রেন। তৃতীয় দফায় ১৬ সেপ্টেম্বর থেকে চালু হবে নাজিরহাট কমিউটার, চট্টগ্রাম- দোহাজারীর ট্রেন চলাচলও।

 

আন্তঃনগর ট্রেনের মত সব ট্রেনই স্বাস্থ্যবিধি মেনে অর্ধেক যাত্রী নিয়ে চলাচল করবে বলে জানালেন সংশ্লিষ্টরা। তবে অনলাইনে টিকিট বিক্রি নিয়ে নানা অভিযোগ রয়েছে যাত্রীদের। এদিকে আগামী ১২ সেপ্টেম্বর শুরু হবে কাউন্টার থেকে টিকিট বিক্রি। গেল ৩১ আগস্ট থেকে চট্টগ্রামে শুরু হয় আন্ত:নগর ট্রেন চলাচল।

নাখালপাড়া থেকে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

রাজধানীতে একটি বাড়ি থেকে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ শুক্রবার (২৮ আগস্ট) সকালে তেজগাঁও থানাধীন নাখালপাড়া থেকে ওই স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত স্বামী-স্ত্রী হলেন-আসমত আলী (৪৫) ও ফারজানা (৩০)।

তেজগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি, তদন্ত) কামাল উদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তবে তাদের ব্যাপারে বিস্তারিত কিছু এখনও জানা যায়নি। নিহতদের মরদেহ ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়ার কথা রয়েছে।

তরুণীর সামনে বিবস্ত্র হওয়া সেই কিশোর আটক
                                  

চট্রগ্রাম প্রতিনিধিঃ

চট্টগ্রামের সদরঘাট থানাধীন পশ্চিম মাদারবাড়ি এলাকায় এক তরুণীর সামনে বিবস্ত্র হয়ে ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া সেই কিশোরকে (১৫) আটক করেছে পুলিশ। জানা গেছে সেই কিশোরের নাম সাজ্জাদ হোসেন বাবুল। এই তরুণ এক তরুণীর সামনে বিবস্ত্র হয়ে ছবি তোলে এবং সেই ছবি ফেসবুকে ভাইরাল হয়। পরে পুলিশ মঙ্গলবার (২৫ আগস্ট) রাত ৮টার পর আগ্রাবাদ এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে।

আটক ওই কিশোর সদরঘাট থানার পশ্চিম মাদারবাড়ি এলাকায় টং ফকির শাহ মাজার লেন এলাকার বাসিন্দা। চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের সহকারি কমিশনার (কোতোয়ালী জোন) নোবেল চাকমা বলেন, ফেসবুকে এক তরুণীর সামনে বাবলু নামে এক কিশোর বিবস্ত্র হওয়ার ভিডিও ও ছবি ভাইরাল হয়েছে। বিষয়টি আমাদের নজরে আসার পর তাকে আটক করা হয়েছে। ঘটনার বিষয়ে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, একটি ভবনের সামনে এক নারী দাঁড়িয়ে আছেন। দূরে বিবস্ত্র হয়ে অশ্লীল অঙ্গভঙ্গি করে এক কিশোর তার দিকে এগিয়ে যায়। তার পেছনে দুই নারীকেও দেখা যায়।

আন্তর্জাতিক নারীপাচার চক্রের হোতা গ্রেপ্তার
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

রাজধানীর সবুজবাগ এলাকায় চাকরির লোভ দেখিয়ে বিদেশে পাঠানোর কথা বলে এক কিশোরীকে ধর্ষণের পর ভারতে পাচারের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় মহেনুমুজ্জামান ওরফে প্রতীক খন্দকার ওরফে বাবু (২৬) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। প্রতীক আন্তর্জাতিক নারী পাচার চক্রের অন্যতম সদস্য।

আজ মঙ্গলবার রাজধানীর মালিবাগে সিআইডির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইম ইউনিটের অতিরিক্ত ডিআইজি শেখ রেজাউল হায়দার।

সংবাদ সম্মেলনে শেখ রেজাউল হায়দার বলেন, ‘চক্রটি চাকরি দেওয়ার নামে বিদেশে পাঠানোর কথা বলে প্রলুব্ধ করলেও ভুক্তভোগীদের কাছ থেকে কোনো টাকা নিতেন না। প্রথম থেকে শুরু করে ভারতে তাদের বিক্রির আগ পর্যন্ত খুব ভালো ব্যবহার করতেন। এরপর ভারতে পাচারের পর তাদেরকে অসামাজিক কাজে লিপ্ত হতে বাধ্য করত চক্রটি। পরে ওই চক্রের কাছে এসব নারীদের বিক্রি করে অর্থ হাতিয়ে নিতেন প্রতীক।’

 

 

তিনি জানান, রাজধানীর সবুজবাগ থানা এলাকার একটি ফ্লাটে স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে সাবলেট হিসেবে ভাড়া ওঠেন চক্রের হোতা প্রতীক খন্দকার ও তার সহযোগী জান্নাতুল ওরফে জেরিন। ওই ফ্ল্যাটে থাকা এক কিশোরীকে ভালো চাকরি দিয়ে মালয়েশিয়া পাঠাবে বলে প্ররোচিত করতেন তারা। একপর্যায়ে ভুক্তভোগী ওই কিশোরীকে প্রতীক ও জেরিন পাচারকারী চক্রের অন্য সদস্যদের মাধ্যমে বেনাপোল সীমান্তের একটি বাড়িতে নিয়ে যান। সেখানে ভুক্তভোগী কিশোরীকে আটকে ধর্ষণ করা হয়। এরপর ভুক্তভোগীকে ভারতে একটি দালাল চক্রের কাছে বিক্রির উদ্দেশ্যে পাচার করার সময় পুলিশ ওই নারীকে উদ্ধারের পাশাপাশি পাচারকারী চক্রের অন্য এক সদস্যকে গ্রেপ্তার করে। এ সময় মানবপাচারকারী চক্রের অন্যতম হোতা প্রতীক পালিয়ে যান। 

অতিরিক্ত ডিআইজি জানান, ঘটনাটি ২০১৯ সালের ২৩ নভেম্বরের। সে সময় সবুজবাগ থানায় ভুক্তভোগী ওই নারীর পরিবারের করা মামলায় প্রতারক জেরিনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এরপর পুলিশ সদর দপ্তরের নির্দেশে টানা এক বছর অনুসন্ধানের পর গতকাল সোমবার আন্তর্জাতিক নারীপাচার চক্রের মূলহোতা প্রতীক খন্দকারকে চট্টগ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগে গ্রেপ্তার দুই আসামি আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। 

তিনি জানান, গ্রেপ্তার প্রতীক ও জেরিন দুজনই প্রতারক। তারা বিভিন্ন বয়সী নারীদের মালয়েশিয়া, দুবাই ও ভারতে ভালো বেতনে চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেখাতেন। পরে পাচার চক্রের কাছে এসব নারীদের বিক্রি করে অর্থ হাতিয়ে নিতেন। এর আগেও আসামিরা বিভিন্ন নারীকে সৌদি আরব পাঠানোর কথা বলে ভারতে পাচার করে এবং অনৈতিক কাজে লিপ্ত হতে বাধ্য করেছেন।

আসামি প্রতীক খন্দকারের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন এবং পর্নোগ্রাফি আইনে পৃথক দুটি মামলা আদালতে বিচারাধীন রয়েছে বলেও অতিরিক্ত ডিআইজি রেজাউল হায়দার জানান।

চট্টগ্রামে মা-ছেলেকে গলা কেটে হত্যা
                                  

চট্রগ্রাম প্রতিনিধিঃ

চট্টগ্রাম মহানগরের চান্দগাঁও থানার পুরাতন চান্দগাঁও এলাকার রমজান আলী সেরেস্তাদারের বাড়িতে ভাড়া বাসায় মা ও ছেলেকে গলা কেটে  হত্যার ঘটনা ঘটেছে।

খবর পেয়ে পুলিশ সোমবার দিনগত রাত ১০টার দিকে তাদের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে। নিহতদের নাম গুলনাহার বেগম (৩৩) ও তার ছেলে রিফাত (৯) বলে জানিয়েছেন চান্দগাঁও থানার ওসি আতাউর রহমান খন্দকার।

তিনি জানান, নিহত মা ও ছেলের গলায় রক্তাক্ত ক্ষত আছে। তাদের হত্যা করা হয়েছে। তবে কারা এ হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে সেটা এখনো জানা যায়নি। তদন্ত চলছে। তবে খুনের শিকার গুলনাহারের কিশোরী কন্যা ময়ূরী এই হত্যাকান্ডের জন্য তার মায়ের পাতানো ভাই জনৈক ফারুককে দায়ী করছেন।

ময়ূরী জানান, বহদ্দারহাটের সিরাজের ছেলে ফারুকের সাথে তাদের পারিবারিক সম্পর্ক ছিল। ফারুকের সাথে গুলনাহার বেগমের পাতানো ভাই-বোনের সম্পর্ক ছিল।

পেশায় ওয়েল্ডিং মিস্ত্রি ফারুক অবসর সময়ে গুলনাহারের বানানো নাস্তা বিক্রি করতো। লকডাউনের সময়েই একইভাবে বিরিয়ানি বিক্রি করছিল ফারুক। ফারুক বিভিন্ন সময়ে টাকার লেনদেন নিয়ে গুলনাহারকে হত্যার হুমকি দিতো।

স্থানীয়রা জানান, গুলনাহারের বাড়ি নোয়াখালীতে। তার স্বামী গৃহকর্মী হিসেবে অন্যত্র কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। তিনি তাদের সাথে থাকেন না। ভাড়া বাসায় এক ছেলে ও এক মেয়েকে নিয়ে বসবাস করতেন গুলনাহার বেগম। প্রতিদিনের মতো গোল নাহারের মেয়ে সকালে গার্মেন্টে চলে যান। বাসায় ছিলো মা ও ছেলে।

চাকরি শেষে ময়ুরী রাত ৯টার দিকে বাসায় ফিরে দেখেন দরজা খোলা। মেঝেতে মা ও ভাইয়ের রক্তাক্ত লাশ পড়ে রয়েছে। এসময় তার চিৎকারে আশাপাশের লোকজন এগিয়ে আসে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের লাশ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করে।

গ্রিনরোডের সেই নারীর হত্যা রহস্য উদঘাটন !
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

রাজধানীর কলাবাগান থানা এলাকা থেকে উদ্ধার করা সেই পরিচয়হীন নারীর হত্যা রহস্য উন্মোচিত হয়েছে এবং সন্ধিগ্ধ হত্যাকারীকে আটকও করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ।

গ্রেফতারকৃতের নাম আনসার আলী। তিনি স্থানীয় একটি বাড়ির নৈশপ্রহরী হিসেবে চাকরি করতেন।

 

নবগঠিত রমনা গোয়েন্দা বিভাগের একটি দল শনিবার সকাল ০৮:৩০ টায় রাজধানীর গ্রিনরোড থেকে আনসার আলীকে গ্রেফতার করেছেন।

রমনা ডিবির অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার মিশু বিশ্বাস পিপিএম ডিএমপি নিউজকে জানান, গত শুক্রবার সকাল ৪:৩০ টায় গ্রিনরোড এলাকার পাকা রাস্তার পাশে এক অজ্ঞাতনামা নারীর (৪০) মরদেহ দেখে এলাকাবাসী পুলিশকে খবর দেন। মরদেহের নাক-মুখ দিয়ে কালচে রক্ত গড়িয়ে পড়ছিল, শরীরের কামিজ ছেঁড়া, গলায় ওড়না ও পাটের সুতা দিয়ে গিট দেওয়া ছিল।

তিনি বলেন, অজ্ঞাত লাশের রহস্য উদঘাটন করতে থানা পুলিশের পাশাপাশি ছায়া তদন্ত শুরু করেন গোয়েন্দা বিভাগ। আধুনিক কলাকৌশল প্রয়োগের মাধ্যমে ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে ঘটনাস্থলের পাশের একটি বাড়ির নৈশ প্রহরী আনসার আলীকে গ্রেফতার করা হয়।

গোয়েন্দা কর্মকর্তা মিশু বিশ্বাস পিপিএম আরো জানান, গ্রেফতারকৃত আনসার আলীকে জিজ্ঞাসাবাদে বেরিয়ে আসে হত্যাকাণ্ডের লোমহর্ষক বর্ণনা। গত বৃহস্পতিবার রাতে সিকিউরিটি গার্ডের ডিউটিরত থাকা অবস্থায় মেয়েটি গেটের কাছে আসলে তার সাথে অনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের প্রস্তাব দেন তিনি এবং এক পর্যায়ে আনসার আলী নারীকে বাথরুমে নিয়ে যান। কিন্তু “অর্থনৈতিক বিষয়” নিয়ে দুজনের কথা কাঁটাকাটি হলে একপর্যায়ে আনসার আলী ঐ নারীর গলা চেপে ধরেন এবং বাথরুমের দেয়ালের সাথে ধাক্কা মারেন। আঘাতে মুখ ও গাল থেকে রক্ত বের হয়ে বাথরুমেই মৃত্যুবরণ করেন ওই নারী। আনসার আলী রাতেই মরদেহের গলায় ওড়না ও পাটের রশি পেঁচিয়ে টেনে নিয়ে রাস্তার পাশে ফেলে রাখেন।

পুলিশ জানান, গ্রেফতারকৃত আনসার আলী স্বেচ্ছায় নিজের দোষ স্বীকার করে বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেছেন।

সূত্র: ডিএমপিনিউজ

রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর শাখাও সিলগালা
                                  

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

পরীক্ষা না করেই করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ভুয়া রিপোর্ট দেওয়া, নিয়ম বহির্ভূতভাবে গ্রাহকদের কাছ থেকে টাকা আদায় এবং মেয়াদপূর্তির পরও লাইসেন্স নবায়ন না করায় রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর শাখাও বন্ধ করে দিয়েছে র‌্যাব। এর আগে মঙ্গলবার একই অভিযোগে রিজেন্ট হাসপাতালের উত্তরা শাখায় অভিযান চালিয়ে বন্ধ করে দেয়া হয়।
 
বুধবার (৮ ‍জুলাই) বিকেল সাড়ে চারটার দিকে মিরপুর ১২ নম্বরে অবস্থিত রিজেন্ট হাসপাতালটি র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলমের নেতৃত্বে একটি দল সিলগালা করে দেয়।

গতকাল পর্যন্ত এ হাসপাতালে ২২ জন করোনা রোগী চিকিৎসা নিচ্ছিল। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পক্ষ থেকে গতকালই রোগীদের অন্যত্র চলে যাওয়ার জন্য বলা হয়। রোগীরা হাসপাতালটি বন্ধ করে দেওয়ার আগেই সেখান থেকে চলে যান।
এরআগে গতকাল মঙ্গলবার করোনা চিকিৎসায় বিভিন্ন অনিয়মের কারণে রাজধানীর উত্তরায় রিজেন্ট হাসপাতালের প্রধান কার্যালয় সিলগালা করা হয়েছে। তিনি জানান, হাসপাতালটিতে বিনা পয়সায় কোভিড-১৯ টেস্ট করানোর কথা থাকলেও প্রতিটি রোগী কাছ থেকে ৩ হাজার ৫০০ টাকা করে নেয়া হতো। এছাড়া তারা নির্ধারিত রোগীর বাইরেও নমুনা সংগ্রহ করে তাদের থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায় করতো। এভাবে তারা এখন পর্যন্ত প্রায় ৩ কোটি টাকার হাতিয়ে নিয়েছে।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলম বলেন, রিজেন্টের প্রধান কার্যালয় থেকেই এই অপকর্মগুলো হতো, এ জন্য সেটি সিলগালা করা হয়েছে। এর আগে সোমবার বিকালে করোনা চিকিৎসায় অনিয়মের অভিযোগে রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর ও উত্তরা শাখায় অভিযান চালানো হয়। অভিযান শেষে জানানো হয়, টেস্ট না করেই করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট দেয়া হতো।
স্যাম্পল নিয়ে তা ফেলে দিয়ে ভুয়া রিপোর্ট দিতো হাসপাতালের সংশ্লিষ্টরা। রিপোর্টে নকল সিল ও স্বাক্ষর দেয়া হতো। এসব ঘটনায় আটজনকে আটক করা হয়েছে। এছাড়া প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যানসহ যারা এ কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত সবার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।


   Page 1 of 5
     নগর - মহানগর
রাজধানীর যে সব এলাকায় ১০ ঘণ্টা থাকবে না গ্যাস শনিবার
.............................................................................................
রোজিনার জামিন শুনানির আদেশ পেছাল
.............................................................................................
রিকশা থেকে ছিটকে পড়ে শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু
.............................................................................................
প্রয়োজনে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন পর্যালোচনা করা হবে’
.............................................................................................
এত দিন পর কেন আসলেন: আল জাজিরা ইস্যুতে হাইকোর্ট
.............................................................................................
আলাউদ্দিন জিহাদীর মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল
.............................................................................................
ধর্ষণ মামলার বিষয়ে যা বললেন ভিপি নুর
.............................................................................................
গুলশানে স্পা সেন্টারে অভিযান
.............................................................................................
ছিনতাইয়ের সময় অস্ত্রসহ ২ সন্ত্রাসী আটক
.............................................................................................
৫ মাস পর চট্টগ্রামে লোকাল ট্রেন চালু
.............................................................................................
নাখালপাড়া থেকে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার
.............................................................................................
তরুণীর সামনে বিবস্ত্র হওয়া সেই কিশোর আটক
.............................................................................................
আন্তর্জাতিক নারীপাচার চক্রের হোতা গ্রেপ্তার
.............................................................................................
চট্টগ্রামে মা-ছেলেকে গলা কেটে হত্যা
.............................................................................................
গ্রিনরোডের সেই নারীর হত্যা রহস্য উদঘাটন !
.............................................................................................
রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর শাখাও সিলগালা
.............................................................................................
ঢাকায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই ছিনতাইকারী নিহত
.............................................................................................
রাজধানীর যে ৪৯ এলাকায় হবে লকডাউন
.............................................................................................
পূর্ব রাজাবাজার লকডাউন, মাঠে রয়েছে সেনা সদস্যরা
.............................................................................................
উত্তরায় পোশাক শ্রমিকদের বিক্ষোভ
.............................................................................................
রাজধানীর যে ৩৮ এলাকা আংশিক লকডাউন ঘোষণা
.............................................................................................
রাজধানীতে সবচেয়ে বেশি করোনা রোগী মিরপুরে
.............................................................................................
ঢাকায় বন্দুকযুদ্ধে ১৩ মামলার আসামি নিহত
.............................................................................................
রাজধানীতে পোশাক শ্রমিকদের বিক্ষোভ-ভাঙচুর
.............................................................................................
চালের বস্তায় ১ মণ গাঁজাসহ আটক ৪
.............................................................................................
মিরপুরে বোনাসের দাবিতে পোশাক শ্রমিকদের অবরোধ
.............................................................................................
গলা কেটে মাকে হত্যার চেষ্টা, ছেলে গ্রেপ্তার
.............................................................................................
রাজধানীতে ব্যাংকের গাড়ি থেকে টাকার বস্তা উধাও!
.............................................................................................
মোহাম্মদপুরে ফিল্মি স্টাইলে ডাকাতি
.............................................................................................
মোহাম্মদপুর থেকে করোনা সন্দেহভাজন প্রবাসীরা পালিয়েছে
.............................................................................................
খিলগাঁওয়ে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সন্ত্রাসী নিহত
.............................................................................................
মিরপুরে একটি ভবন লকডাউন
.............................................................................................
করোনা আতংকে ফাঁকা হচ্ছে ঢাকা
.............................................................................................
আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের ৩ সদস্য গ্রেফতার
.............................................................................................
খিলগাঁওয়ে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত
.............................................................................................
আশকোনার হজ ক্যাম্পে তুমুল হট্টগোল
.............................................................................................
মিটফোর্ড থেকে নকল আইপিল ও ভায়াগ্রা উদ্ধার
.............................................................................................
রূপনগর বস্তির আগুন নিয়ন্ত্রন, পুড়েছে প্রায় ৩০০ ঘর
.............................................................................................
রুপনগরে ভয়াবহ আগুন, নিয়ন্ত্রনে ১৬ ইউনিট
.............................................................................................
শনির আখড়ায় রঙের কারখানায় আগুন
.............................................................................................
দুই শিশুকে হত্যা করে মায়ের আত্মহত্যার চেষ্টা
.............................................................................................
কেরানীগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত নিহত
.............................................................................................
২ শিশুকে ধর্ষণচেষ্টার পর হত্যা: দুইজনের ফাঁসি
.............................................................................................
ইস্কাটনে ভবনে আগুন, স্বামী-স্ত্রীর অবস্থা আশঙ্কাজনক
.............................................................................................
এনামুল-রুপনের বাড়ীতে ফের অভিযান, এ যেন টাকার খনি
.............................................................................................
ঢাকা রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ পুলিশ সুপার প্রলয় কুমার
.............................................................................................
সর্বত্র বাংলা ভাষার ব্যবহার নিশ্চিত করব
.............................................................................................
শহীদ মিনারে ৪ স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা
.............................................................................................
কেরানীগঞ্জে ত্রিমুখী সংঘর্ষে নিহত ৩
.............................................................................................
রাজধানীতে অস্ত্রসহ ছয় ডাকাত গ্রেপ্তার
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
সম্পাদক ও প্রকাশকঃ এম.এ মান্নান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ খন্দকার আজমল হোসেন বাবু। র্বাতা সম্পাদক আবু ইউসুফ আলী মন্ডল, ফোন ০১৬১৮৮৬৮৬৮২

ঠিকানাঃ বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়- নারায়ণগঞ্জ, সম্পাদকীয় কার্যালয়- জাকের ভিলা, হাজী মিয়াজ উদ্দিন স্কয়ার মামুদপুর, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ। শাখা অফিস : নিজস্ব ভবন, সুলপান্দী, পোঃ বালিয়াপাড়া, আড়াইহাজার, নারায়ণগঞ্জ-১৪৬০, রেজিস্ট্রেশন নং 134 / নিবন্ধন নং 69 মোবাইল : 01731190131, 01930226862, E-mail : mannannews0@gmail.com, web: notunbazar71.com, facebook- notunbazar / সম্পাদক dhaka club
    2015 @ All Right Reserved By notunbazar71.com

Developed By: Dynamic Solution IT Dynamic Scale BD & BD My Shop